শিরোনাম:

৭০ বছরের বৃদ্ধের দুঃসাহসী কাণ্ড!

জেলা প্রতিনিধি, ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি
প্রকাশিত : বুধবার, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০৬:৫৪
অ-অ+
৭০ বছরের বৃদ্ধের দুঃসাহসী কাণ্ড!
ছবি: ব্রেকিংনিউজ

নেত্রকোনা: ক্ষিতিন্দ্র বৈশ্যের ১৪৬ কিলোমিটার সাতারের রেকর্ডের রেশ এখনো কাটেনি। এরমধ্যে হাত পা বেঁধে নদীতে ৭ কিলোমিটার সাঁতরে এবার আলোচনায় এসেছেন নেত্রকোনা সদর উপজেলার লক্ষীগঞ্জ ইউনিয়নের ঢুলিগাতি গ্রামের সত্তর বছরের বৃদ্ধ ইলিয়াস উদ্দিন।

বুধবার(১৩ সেপ্টেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২টায় ঢুলিগাতি বাজারঘাট থেকে ঝিটাই নদীতে নামেন তিনি। এর আগে সময় গামছা ও সাদা কাপড় দিয়ে বেঁধে দেয়া হয় তার হাত-পা। আর এভাবেই আড়াই ঘণ্টা নদীতে সাঁতার কাটেন। দুপুর ২টায় সাত কিলোমিটার নদী পাড়ি দিয়ে মদনপুর বাজার ঘাটে এসে পৌঁছান।

এসময় উৎসুক জনতা নদীর দুই তীরে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। নিরাপত্তা ব্যবস্থা হিসেবে একটি ডিঙি নৌকায় কয়েকজন মাইক নিয়ে পাশাপাশি ছিলেন, কিন্তু যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে সেই মাইক আর বাজেনি। কোন প্রকার বিপত্তি ছাড়াই অভিযান শেষ করতে পেরে সৃষ্টিকর্তার নিকট অশেষ কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন দুঃসাহসী এই মানুষটি।

ইলিয়াস উদ্দিন ব্রেকিংনিউজকে জানান, ‘কোন রেকর্ডের উদ্দেশ্যে নয় এমনিতেই মনের ইচ্ছা থেকে তিনি এই কাণ্ড করেছেন। ২০ বছর আগেও একইভাবে নদীতে নেমে ৫ কিলোমিটার গিয়েছিলেন তিনি।

ইলিয়াস উদ্দিনের এই সাতার নিয়ে অনেকেই বাজি খেলেছে এমন অভিযোগ পাওয়া গেছে। নদীর পাড়ের অনেকে তার এই কাণ্ডে অবাক হয়েছে। দর্শক সারির কয়েকজন তার এই দুঃসাহসিক কাজের বিরক্ত হয়ে বলেই ফেললেন ‘বুড়ার সাহস তো কম নয়।’

ব্যক্তি জীবনে চার সন্তানের জনক ইলিয়াস উদ্দিন পেশায় তিনি একজন কৃষক।

ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি/ এমএইচ