ইফাদের শীর্ষ দশ প্রকল্পের তিনটিই বাংলাদেশের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
৩০ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার
প্রকাশিত: ০১:০৩

ইফাদের শীর্ষ দশ প্রকল্পের তিনটিই বাংলাদেশের

ইন্টারন্যাশনাল ফান্ড ফর এগ্রিকালচারাল ডেভলপমেন্ট (আইএফএডি) এর বাংলাদেশ ও মালদ্বীপের কান্ট্রি ডিরেক্টর ওমর জাফর ঢাকায় শেরে বাংলানগরে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সঙ্গে মন্ত্রীর দপ্তরে সাক্ষাৎ করেন। 

সাক্ষাৎকালে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘কৃষি উন্নয়নে সহায়তার জন্য আন্তর্জাতিক সংস্থা হিসেবে অত্যন্ত সহজ শর্তে কৃষি উন্নয়নে আন্তর্জাতিক কৃষি উন্নয়ন তহবিল (ইফাদ) এর সদস্য দেশগুলোর মধ্যে ঋণ ও অনুদান প্রদান করার সুনাম রয়েছে।’

‘বাংলাদেশের সহস্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা-এমডিজি অর্জনে অভূতপূর্ব সাফল্যের পর ২০৩০ সালের মধ্যে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা-এসডিজি অর্জনে ইফাদ কার্যকর সহায়তা প্রদানে কাজ করে যাচ্ছে। ইফাদ বাংলাদেশ সরকারের দীর্ঘ ও মধ্য মেয়াদে বাস্তবায়নের নিমিত্ত প্রণীত কৌশলগত পরিকল্পনার সাথে সাযুজ্যকরণের মাধ্যমে দেশের আর্থসামজিক উন্নয়ন-সহ পল্লী উন্নয়ন,  দারিদ্র্য বিমোচন এবং পরিবেশ রক্ষা ও উন্নয়নে বিভিন্ন ধরনের গুরুত্বপূর্ণ কার্যক্রম পরিচালনা করছে।’

ওমর জাফর বলেন,  ‘বাংলাদেশে বর্তমানে আইএফএডি’র ১ দশমিক ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বিনিয়োগ রয়েছে, যা বিশ্বব্যাপী আইএফএডি’র তৃতীয় বৃহত্তম বিনিয়োগ। বিশ্বব্যাপী ইফাদের ২৫০টি প্রকল্পের শীর্ষ ১০টির মধ্যে বাংলাদেশের ৩টি প্রকল্প রয়েছে এবং প্রথম স্থানটিও বাংলাদেশের স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগ কর্তৃক বাস্তবায়িত উপকূলীয় জলবায়ু স্থিতিস্থাপক অবকাঠামো প্রকল্প।’

বর্তমানে বাংলাদেশে সাতটি চলমান প্রকল্প রয়েছে যা পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশন, কৃষি মন্ত্রণালয়, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর, পানি উন্নয়ন বোর্ড বাস্তবায়ন করবে। আরো দু’টি প্রকল্প নকশা বাস্তবায়নাধীন রয়েছে।

ওমর জাফর এই প্রকল্পগুলোর বাস্তবায়নের অগ্রগতি সম্পর্কে মন্ত্রীকে অবগত করেন এবং তাদের অংশীদারিত্ব আরো বাড়ানোর বিষয়ে দিকনির্দেশনার আশা ব্যক্ত করেন।

ব্রেকিংনিউজ/এমজি