পদ্মায় পানি বৃদ্ধি, ক্ষতির মুখে ঈশ্বরদীর কৃষকরা

জেলা প্রতিনিধি
২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শুক্রবার
প্রকাশিত: ০২:১০ আপডেট: ০২:১১

পদ্মায় পানি বৃদ্ধি, ক্ষতির মুখে ঈশ্বরদীর কৃষকরা

টানা বৃষ্টি ও পাহাড়ি ঢলে পদ্মা নদীতে ক্রমাগত পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় তীরবর্তী ঈশ্বরদী উপজেলার বিভিন্ন ফসলি জমি তলিয়ে গেছে। এতে ব্যাপক ক্ষতির মুখে পড়েছেন প্রায় তিন হাজার কৃষক।

উপজেলা কৃষি অফিসের তথ্যে জানা যায়, চলতি মৌসুমে উপজেলায় পদ্মা নদীর চরাঞ্চলে আবাদ হয়েছে প্রায় এক হাজার হেক্টর। গত কয়েকদিন ধরে পদ্মা নদীতে অস্বাভাবিকভাবে পানি বৃদ্ধির ফলে চরাঞ্চলের বিস্তীর্ণ এলাকার আবাদি ফসল তলিয়ে গেছে।

উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে ও কৃষকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, পদ্মা নদীতে আকস্মিক পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় সাঁড়া ইউনিয়নে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। চরাঞ্চলের মাঠগুলো গত এক সপ্তাহ আগেও যেখানে সবুজ ফসলে পরিপূর্ণ ছিল। গত কয়েক দিনে পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় তা তলিয়ে গেছে।

তলিয়ে যাওয়া ফসলের মধ্যে রয়েছে বীজ পাট, আমন ধান ও অন্যান্য ফসল। পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকলে এখনও যেসব জমিতে পানি ঢুকেনি, সেগুলোও তলিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

সাঁড়া ইউনিয়নের কৃষক ইন্তেজার আলী জানান, এ বছর তেমন বন্যা না হওয়ায় চরের ৫ বিঘা জমিতে আগাম মাসকলাই চাষ করেছিলেন। ফলনও ভালো হয়েছিল। কিন্তু গত কয়েকদিনে পদ্মার পানি হঠাৎ করে বৃদ্ধি পাওয়ায় সব জমির ফসল তলিয়ে গেছে।

তিনি আরও জানান, প্রতি বছর পদ্মায় পানি বৃদ্ধি পেলেও ফসল চাষের আগেই পানি নেমে যায়। ফলে কৃষকরা চরাঞ্চলে ব্যাপকভাবে বিভিন্ন ফসল চাষ করে থাকেন। আর এ ফসল থেকেই সারা বছরের আর্থিক চাহিদা মিটিয়ে থাকেন। এ বছর তেমন বন্যা না হওয়ায় কৃষকরা ব্যাপকভাবে চাষ করেছিলেন। কিন্তু হঠাৎ করেই পদ্মার পানি বেড়ে যাওয়ায় কৃষকরা আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়েছেন।

সাঁড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রানা সরদার জানান, এ সময় সাধারণত পদ্মা নদীতে পানি বাড়ে না। কিন্তু হঠাৎ করে পানি বেড়ে যাওয়ায় কৃষকরা আর্থিক ক্ষতির সম্মুখিন হয়েছে।

ব্রেকিংনিউজ/এম

bnbd-ads