হুমকিতে উপকারী প্রাণী বেজি

পরিবেশ ডেস্ক
৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, সোমবার
প্রকাশিত: ০৩:৫৫ আপডেট: ০৯:২০

হুমকিতে উপকারী প্রাণী বেজি

প্রতিনিয়ত কমছে ঝোপঝাড়, নদী-নালা, খাল-বিল আর বনাঞ্চল। বিপরীতে বেড়েই চলেছে নগরায়ন। আর তাতে প্রাণিজগতে খাদ্য ও আবাসন সংকট তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। আর তাতে দিন দিন বিলুপ্ত হচ্ছে বিভিন্ন প্রজাতির বন্যপ্রাণী। তেমনই এক প্রাণী বেজি। মানুষ ও প্রকৃতির বহুবিধ উপকারী এই প্রাণীটিও এখন হুমকির মুখে। 

ইংরেজিতে ‘Small Indian Mongoose’ নামে ডাকা হলেও বেজির বৈজ্ঞানিক নাম ‘Herpestes auropunctatus’। এই প্রাণীটি সাধারণত Carnivora বর্গের Herpestidae গোত্রের ছোট, মাংসাশী স্তন্যপায়ী এবং শিকারি ধাঁচের হয়। লোমশ শরীর, দ্রুত নিঃশব্দে চলাফেরা করতে পারে। বেজি খুব ভালো শিকারি প্রাণী। দিনের বেলায় খাবার খায়। রাতে নিজেদের তৈরি করা মাটির গর্তে বসবাস করে। এদের বসবাস শহরে বা গ্রামে ঝোপঝাড়ে। 

বাংলাদেশে তিন প্রজাতির বেজির মধ্যে বড় বেজি, ছোট বেজি এবং কাঁকড়াভুক বেজিই বেশি দেখা যায়। এর মধ্যে কাঁকড়াভুক বেজি বৃহত্তর সিলেট, চট্টগ্রাম এবং পার্বত্য চট্টগ্রামে দেখা যায়। বড় বেজি দেশের পশ্চিম ও মধ্যাঞ্চলে আর ছোট বেজি কমবেশি সারা দেশেই চোখে পড়ে। 

বেজি ফসলের খেতের ছোট-বড় ইঁদুর, সাপ, মাছ, ব্যাঙ, পোকামাকড়, পাখি এমনকি পাখির ডিম খায়। মাঝে মধ্যে এরা হাঁস-মুরগি, কবুতরের ছানা এবং অন্যান্য ছোট প্রাণীও খায়। তাই গ্রামীণ জনগোষ্ঠী বেজিকে শত্রু মনে করে। তবে দুয়েকটা হাঁস মুরগির ছানা খেয়ে বেজি কৃষকের যে ক্ষতি করে, তার চেয়ে অনেক বেশি উপকার করে ফসলের খেতের ইঁদুর ও পোকামাকড় খেয়ে।

বেজির সঙ্গে সাপের চিরশত্রুতা। বেজি যে অঞ্চলে থাকে, সে অঞ্চলে সাপ থাকে না। বিষধর সাপ, ব্যাঙ, পোকামাকড় এবং বিভিন্ন ধরনের কীটপতঙ্গ খেয়ে বেজি পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় অসামান্য অবদান রাখে। 

বিলুপ্তির হুমকিতে থাকা এই বেজি নিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণীবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক বন্যপ্রাণী বিশেষজ্ঞ মনিরুল এইচ খান বলেন, ‘প্রাকৃতিক পরিবেশে ছোট বেজি এবং বড় বেজি এখনও মোটামুটি ভালোই আছে। কাঁকড়াভুক বেজি অনেক কম দেখা যায়। তবে সব বেজিই আগের চেয়ে কমে গেছে।’

এ বিষয়ে প্রকৃতি সংরক্ষণ বিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন ফর কনজারভেশন অব ন্যাচার অ্যান্ড ন্যাচারাল রিসোর্সেসের (আইইউসিএনএন) বন্যপ্রাণী গবেষক সীমান্ত দীপু বলেন, ‘বাংলাদেশ এবং বৈশ্বিকভাবে বন্যপ্রাণীর যে রেড লিস্ট আছে, সে ক্যাটাগরিতে বেজির নাম নেই। তবে সারাদেশেই বেজির অবস্থা খারাপ। উপযুক্ত পরিবেশের অভাবে আগের তুলনায় শহর এবং গ্রামে বেজি কমে গেছে।’ 

বেজি কমে যাওয়ার কারণ উল্লেখ করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক বন্যপ্রাণী এবং পরিবেশ বিশেষজ্ঞ নুরজাহান সরকার বলেন, বে‘জি মানুষ এবং প্রকৃতির পরম উপকারী একটা প্রাণী। কিন্তু নগরায়ণ, আবাস ও খাদ্য সংকটের কারণে বেজি দিনে দিনে কমে যাচ্ছে আমাদের প্রকৃতি থেকে। সেইসঙ্গে কিছু উপজাতিরাও বেজি ধরে খায়।’ 

পরিবেশবিদেরা পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় বেজিসহ অন্যান্য বন্যপ্রাণীদের সংরক্ষণের তাগিদ দিয়েছেন। 

ব্রেকিংনিউজ/এমআর