সৈন্যরা সীমান্তে কঠোর অবস্থানে, আমরা প্রস্তুত: পাক সেনাবাহিনী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
১৭ আগস্ট ২০১৯, শনিবার
প্রকাশিত: ০৮:৪৭ আপডেট: ১০:২৬

সৈন্যরা সীমান্তে কঠোর অবস্থানে, আমরা প্রস্তুত: পাক সেনাবাহিনী

ভারতের বিরুদ্ধে আবারও কঠোর হুঁশিয়ারি দিলো পাকিস্তান সেনাবাহিনী। সীমান্তে তারা কঠোর অবস্থানে রয়েছে। ভারতের ‘যেকোনও তৎপরতা’ রুখে দিতে তারা প্রস্তুত আছে বলে জানিয়েছেন পাক সেনাবাহিনীর মুখপাত্র মেজর জেনারেল আসিফ গফুর। 

জম্মু-কাশ্মির ও আজাদ কাশ্মীর এবং সীমান্ত গোলাগুলি নিয়ে শনিবার (১৭ আগস্ট) ইসলামাবাদে সংবাদ সম্মেলন করে পাকিস্তান সেনাবাহিনী। 

পাক সেনাবাহিনীর মুখপাত্র বলেন, পুলওয়ামার মতো মিথ্যা ঘটনা সাজিয়ে ভারত আবার পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কোনো ষড়যন্ত্র করতে পারে। কিন্তু আমাদের সৈন্যরা সীমান্তে কঠোর অবস্থানে রয়েছে। ভারতের যেকোনও অপতৎপরতা রুখে দিতে আমরা প্রস্তুত। 

কাশ্মীরিদের পাশে থাকার ঘোষণা দিয়ে পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনীর জনসংযোগ অধিদফতরের মহাপরিচালক আরও বলেন, কাশ্মীর ইস্যুর সঙ্গে তার দেশের নিরাপত্তা ঘনিষ্ঠভাবে জড়িত। কারফিউ সরিয়ে নেয়ার পর কাশ্মীরি জনগণ ব্যাপক প্রতিক্রয়া দেখাবে। 

জনগণের বিক্ষোভ দমানোর নামে ভারতীয় বাহিনী নিয়ন্ত্রণ রেখা পেরিয়ে আজাদ কাশ্মীরে ঢুকে যেতে পারে বলে আমাদের কাছে তথ্য রয়েছে। 
ভারত এটিই চাচ্ছে যে, কাশ্মীর পরিস্থিতির অবনতি হোক, আর তারা এ সুযোগে নিয়ন্ত্রণ রেখা পার হবে। 

ভারতের প্রতি হুশিয়ারি উচ্চারণ করে সেনাবাহিনীর এ মুখপাত্র বলেন, ‘ভারতের আজাদ কাশ্মীর দখলেন স্বপ্ন কখনও পূরণ হবে না। দেশবাসীকে আমরা কথা দিচ্ছি, পাক সেনাবাহিনী জনগণের আশাভঙ্গ করবে না।’

৯/১১-এর পর থেকে কাশ্মীরিদের স্বাধীনতা আন্দোলনকে ভারত জঙ্গিবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত করছে বলেও অভিযোগ করেন জেনারেল আসিফ গফুর। 

ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রীর ‘দায়িত্বজ্ঞানহীন’ বক্তব্যের প্রতি মনোযোগ দেয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘পাকিস্তান একটি দায়িত্বশীল রাষ্ট্র কিন্তু ভারত সবসময় আমাদেরকে হুমকি দিয়ে চলেছে। দায়িত্বশীল রাষ্ট্র রাজনাথ সিংয়ের মতো কথা বলতে পারে না।’

ব্রেকিংনিউজ/ এসএ