শ্রীলঙ্কা হামলা: আইজিপি ও প্রতিরক্ষা সেক্রেটারিকে গ্রেফতারে প্রেসিডেন্টকে চিঠি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
২৪ এপ্রিল ২০১৯, বুধবার
প্রকাশিত: ০৫:৫৬ আপডেট: ০৬:৩২

শ্রীলঙ্কা হামলা: আইজিপি ও প্রতিরক্ষা সেক্রেটারিকে গ্রেফতারে প্রেসিডেন্টকে চিঠি
ছবিতে পুজিথ জয়াসুন্দর (বামে) ও হেমাসিরি ফার্নান্দো

শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ সিরিজ বোমা হামলায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ হওয়ার দায়ে দেশটির পুলিশ প্রধান (আইজিপি) পুজিথ জয়াসুন্দর ও প্রতিরক্ষা সেক্রেটারি হেমাসিরি ফার্নান্দোকে গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়েছে। 

গেল রবিবারের ওই হামলার পর বুধবার (২৪ এপ্রিল) দেশটির এক সংসদ সদস্য বিজয়দাসা রাজাপাকসে প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনাকে লিখা এক চিঠিতে এমন দাবি জানিয়েছেন।

সাংসদ বিজয়দাসা রাজাপাকসে প্রেসিডেন্টকে লিখা চিঠিতে বলেন, হামলার পূর্বাভাস পেয়েও যথাযথ ব্যবস্থা না নেয়ায় আইজিপি জয়সুন্দর ও প্রতিরক্ষা সেক্রেটারি হেমাসিরি ফার্নান্দোকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা জরুরি। দুজনেই দায়িত্ব পালনে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছেন বলেও ওই চিঠিতে উল্লেখ করা হয়।

প্রেসিডেন্টকে লিখা চিঠিতে ওই লঙ্কান এমপি আরও বলেন, ওই দুই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী কর্মকর্তা হামলার আগাম বার্তা পাওয়ার পরও প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা ও প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহেকে এ ব্যাপারে কিছু জানাননি। এটি পুরোপুরি গাফিলতির সামিল।

শুধু তাই নয়, ওই দুই প্রশাসনিক কর্মকর্তা হামলার আভাস পেয়েও তা মোকাবিলায় যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ কিংবা আইন-শৃঙ্খলাবাহিনীকে প্রস্তুত থাকারও নির্দেশ দেননি। 

এদিকে গতকাল মঙ্গলবার ভয়াবহ ওই সিরিজ বোমা হামলার দায় স্বীকার করেছে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস)। হামলাকারীদের নাম ও ছবি প্রকাশ করেছে আইএসের মুখপত্র ‘আমাক’।

মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) শ্রীলঙ্কার পার্লামেন্টে এক অধিবেশনে দেয়া ভাষণে দেশটির প্রতিরক্ষা প্রতিমন্ত্রী রুয়ান বিজেবর্ধনে দাবি করেছেন, নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার প্রতিশোধ নিতেই শ্রীলঙ্কায় ইস্টার সানডের অনুষ্ঠানে সিরিজ বোমা হামলা চালানো হয়েছে।

এর একদিন পরই বুধবার (২৪ এপ্রিল) এক সংবাদ সম্মেলনে বিজেবর্ধনে জানান, ওই হামলায় ৯ জন আত্মঘাতী অংশ নিয়েছিলো। যেখানে এক নারীও ছিল। হামলাকারীদের মধ্যে ৮ জনকে শনাক্ত করতে সক্ষম হয়েছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, গত রবিবার (২১ এপ্রিল) সকাল পৌনে ৯টার দিকে শ্রীলঙ্কার তিনটি গির্জা, তিনটি বিলাসবহুল হোটেল ও দুটি স্থাপনায় সংঘবদ্ধ সিরিজ বোমা হামলায় অন্তত ৩৫৯ জনের প্রাণহানি হয়। আহত হন আরও অন্তত ৫ শতাধিক লোক। নিহতদের মধ্যে দুই বাংলাদেশিসহ অন্তত ৩৮ জন বিদেশি নাগরিক রয়েছেন।

এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত সন্দেহভাজন ৪০ জনকে আটক করেছে শ্রীলঙ্কার পুলিশ। 

ব্রেকিংনিউজ/এমআর

bnbd-ads