পাক প্রধানমন্ত্রীর কথা শুনলেন না সরফরাজ

স্পোর্টস ডেস্ক
১৬ জুন ২০১৯, রবিবার
প্রকাশিত: ০৪:০৮

পাক প্রধানমন্ত্রীর কথা শুনলেন না সরফরাজ

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান একটি পরামর্শ দিয়েছিলেন বিশ্বকাপে তার দলকে। ইমরান খান এক্ষেত্রে বিশ্বের আর সকল রাষ্ট্র নেতাদের চেয়ে ব্যতিক্রম। কারণ তিনি নিজেও বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক। পাকিস্তানের একমাত্র বিশ্বকাপ শিরোপাটি এসেছিল ইমরানের হাত ধরেই। সময়ের পরিক্রমায় তিনি আজ পাকিস্তানের সরকার প্রধান।

বিশ্বকাপে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে ম্যাচকে সামনে রেখে একটি পরামর্শ দিয়েছিলেন ইমরান। পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদকে তিনি বলেছিলেন, ভারতের বিপক্ষে হাইভোল্টেজ ম্যাচে টস জিতলে আগে ব্যাটিং নেয়ার; কিন্তু সরফরাজ অবশ্য তার কথা রাখেননি। ম্যানচেস্টারে টস জিতে তিনি ভারতকে আগে ব্যাটিংয়ে পাঠিয়েছেন।

অফিশিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে এ বিষয়ে পরপর পাঁচটি সিরিজ টুইট করে সরফরাজদের পরামর্শ দিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী।

ইমরান খান বলেন, ‘যখন আমি খেলা শুরু করি তখন আমরা মনে করতাম জয়ের জন্য ৭০ শতাংশ দরকার প্রতিভা আর ৩০ শতাংশ মানসিক শক্তি। যখন আমি ক্যারিয়ার শেষ করি তখন এই হার ৫০-৫০ এ চলে আসে। কিন্তু এখন আমি বন্ধু গাভাস্কারের সাথে একমত যে বড় ম্যাচ জিততে হলে আজকের দিনে ৬০ শতাংশ দরকার মানসিক শক্তি, আর ৪০ শতাংশ প্রতিভা। কিন্তু আজকের ম্যাচে মানসিক শক্তি ম্যাচ জয়ে ভুমিকা রাখবে ৬০ শতাংশ।

এরপরই ইমরান বলেছন, এই ম্যাচে উভয় দল বড় চাপে থাকবে। আর যারা মানসিকভাবে শক্তিশালী হতে পারবে তারাই জিতবে। সরফরাজের মতো দৃঢ়চেতা একজন অধিনায়ক আছে আমাদের যে তার সবটুকুই আজ ঢেলে দেবে। পিচ স্যাঁতসেঁতে না হলে তাবে অবশ্যই টস জিতে ব্যাটিং নিতে হবে আগে।

এরপরই সরফরাজের দলের উদ্দেশ্যে ইমরান বলেছেন, ভারত ফেবাটির টিম তাই হারের ভয় মন থেকে দূর করে খেলায় মনোযোগ দাও। শেষ বল পর্যন্ত লড়াই করে যাও।

কিন্তু ইমরানের সেই টস জিতে ব্যাটিং করার পরামর্শ রাখেননি পাকিস্তান অধিনায়ক। ম্যানচেস্টারে গত দুই দিন ধরে বেশ বৃষ্টি হচ্ছে। পিচ ও আউট ফিল্ড অনেকটাই ভেজা, যে কারণে তিনি টস জিতে ফিল্ডিং নিয়েছেন। অবশ্য ইমরানের টুইটেও আভাস ছিলো পরিস্থিতি ‍বুঝে সিদ্ধান্ত নেয়ার। হয়তো সেটাই করেছেন সরফরাজ।

ব্রেকিংনিউজ/এএফকে