শিবির সন্দেহে মারধর: ঢাবিতে ছাত্রলীগবিরোধী বিক্ষোভ

ঢাবি করেসপন্ডেন্ট
২৩ জানুয়ারি ২০২০, বৃহস্পতিবার
প্রকাশিত: ০৬:১১ আপডেট: ০৭:৩৪

শিবির সন্দেহে মারধর: ঢাবিতে ছাত্রলীগবিরোধী বিক্ষোভ

ইসলামী ছাত্রশিবির সন্দেহে বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলে চার শিক্ষার্থীকে নির্যাতনকারী ছাত্রলীগ নেতাদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (২৩ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাস বিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্যুরিজম এণ্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের শিক্ষার্থীরা। এতে কয়েক শতাধিক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন।

মানববন্ধনে দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী কবিতা বলেন, ‘আমাদের বন্ধু মুকিমসহ চারজন ছাত্রকে নিষ্ঠুরভাবে মারা হয়েছে। সে শিবির করে নাকি অন্যকোনো দল করে সেটা একান্তই তার ব্যক্তিগত বিষয়। তাকে মারার অধিকার কারো নেই। সে যদি কোনো অপরাধ করে থাকে, তাহলে সেটার বিচারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আছে।’

আরেক শিক্ষার্থী বলেন, ‘কিছুদিন আগে আবরারকেও শিবির আখ্যা দিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে। এরপর আমাদের বন্ধু মুকিমেও একইভাবে নির্যাতন করা হলো। এরপর আমাকে-আপনাকেও এভাবে মারা হবে।’

এসময় তারা তারা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে চার দফা দাবি উপস্থাপন করেন। দাবিগুলো হল- ‘যারা মুকিমের ওপর অন্যায়ভাবে পাশবিক নির্যাতন চালিয়েছে তাদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার ও দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দেয়া; একটা নিরাপদ ক্যাম্পাস, যেখানে স্বাধীনভাবে মত প্রকাশ ও স্বাধীনভাবে চলাফেরা করা যাবে এবং রাজনৈতিক মতের প্রতিফলন ঘটানো যাবে; আবাসিক হলগুলোতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে, প্রথম বর্ষ থেকেই হলে সিট বরাদ্দ দিতে হবে; এবং সিট বাণিজ্য বন্ধ করতে হবে।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার (২১ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলে  ট্যুরিজম এণ্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের আবাসিক শিক্ষার্থী মুকিম মুহাম্মদ চৌধুরীসহ ৪ শিক্ষার্থীকে শিবিরের সংশ্লিষ্টতার অভিযোগে বুয়েটের আবরারের স্টাইলে রাতভর নির্যাতন করেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

নির্যাতনের পর আহত শিক্ষার্থীদের হল প্রশাসন, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল টিম ও পুলিশের মাধ্যমে শাহবাগ থানায় নেয়া হয়। পরে শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে শিবিরের সংশ্লিষ্টতার প্রমাণ না পাওয়ায় তাদের ছেড়ে দেয় পুলিশ। 

নির্যাতনের শিকার হওয়া শিক্ষার্থী মুকিম মুহাম্মদ চৌধুরীর শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটেছে। শারীরিক চিকিৎসার জন্য তাকে পুনারায় মেডিকেলে নেয়া হয়েছে। বিচারের দাবিতে, বুধবার রাতে রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে অবস্থান করেন মুকিম মুহাম্মদ চৌধুরী। পরে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে বৃহস্পতিবার দুপুর ৩টার দিকে তাকে মেডিকেলে নেয়া হয়।

ব্রেকিংনিউজ/ এসএ 

bnbd-ads
breakingnews.com.bd
সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা, ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫, ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা,
  ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫,
 ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি