শিরোনাম:

‘হাই, অ্যাই অ্যাম থিফ’ চিরকুট লিখে মোবাইল নিয়ে গেল চোর!

রকমারি ডেস্ক
৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শনিবার
প্রকাশিত: 8:02
‘হাই, অ্যাই অ্যাম থিফ’ চিরকুট লিখে মোবাইল নিয়ে গেল চোর!

প্রবাদ আছে, চুরি বিদ্যা মহাবিদ্যা, যদি না পড়ো ধরা। কিন্তু, এ চোরের যে ধরা পড়ার ভয় তো নেইই বরং চুরির কথা লিখে গেল চিরকুটে! মোবাইল ফোন চুরি করে ফলাও করে নিজের কীর্তির কথা জানিয়ে গিয়েছে সে। চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমানের ভাতারে। 

পূর্ব বর্ধমানের ভাতার বাজারের কলপুকুর পাড় এলাকায় থাকেন পঁচিশ বছর বয়সী যুবক সজন মিঞা। সজন পেশায় একজন লটারি বিক্রেতা। দশদিন আগে শখ করে একটি স্মার্টফোন কিনেছিলেন সজন। সজন মিঞা জানিয়েছেন, ‘বুধবার রাতে সাড়ে বারোটা পর্যন্ত মোবাইলে ফেসবুক করেন তিনি। এরপর মাথার কাছে টেবিল ফোনটি চার্জে বসিয়ে ঘুমিয়ে পড়েন। বৃহস্পতিবার সকালে যখন ঘুম থেকে ওঠেন, তখন দেখেন, মোবাইল ও চার্জারটি নেই। টেবিলে শুধু সিমকার্ডটি পড়ে রয়েছে।’ 

কিন্তু মোবাইলটি গেল কোথায়? যে টেবিলে মোবাইল ও চার্জারটি রাখা ছিল, সেই টেবিলে একটি চিঠি পান সজন। তাঁর চিঠিতে লেখা ছিল, ‘হাই, অ্যাই অ্যাম থিফ। তোমার ফোন চুরি করেছি। বাট টেনশন নট। তোমার ফোন আবার তোমাকে ফেরত দেব একমাস পর। ওয়েট, বাই বাই’। সজন মিঞার দাবি, প্রথমে তিনি ভেবেছিলেন, বাড়ির কেউই হয়তো মজা করেছে। কিন্তু, যখন দেখেন বারান্দার দরজা ভাঙা, তখনই আসল ঘটনাটি বুঝতে পারেন সজন। প্রথমে বন্ধুদের সঙ্গে নিজেই মোবাইলটি উদ্ধার করার চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু লাভ হয়নি। শেষ পর্যন্ত ভাতার থানায় অভিযোগ দায়ের করেন সজন মিঞা। এদিকে অভিনব কায়দায় মোবাইল চুরির ঘটনা জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পূর্ব বর্ধমানের ভাতারে।

ব্রেকিংনিউজ/জেআই 

Ads-Sidebar-1
Ads-Sidebar-1
Ads-Sidebar-1
Ads-Sidebar-1
Ads-Bottom-1
Ads-Bottom-2